ইসলাম ও আমাদের জীবন

বিভিন্ন সংবাদপত্র থেকে নেয়া কিছু লেখা …

ইসলাম ও আমাদের জীবন - বিভিন্ন সংবাদপত্র থেকে নেয়া কিছু লেখা …

জননীর পদতলে সন্তানের বেহেশত

সন্তান সন্ততির পৃথিবীতে আসার মাধ্যম হচ্ছে তার পিতা ও মাতা। শিশুর জন্মদিন থেকে তার প্রাপ্ত বয়স্ক হওয়া পর্যন্ত তার লালন-পালনের বাহক হচ্ছে তার পিতা-মাতা। সমস্ত সৃষ্টিজগতের লালন ও পালনকর্তা একমাত্র আল্লাহ। তাই তাকে বলা হয় রব্বুল আ’লামীন তথা বিশ্বজগতের প্রতিপালক। সৃষ্টিজগতের লালনপালন এবং সন্তান-সন্ততির লালন-পালন উভয়ের মধ্যে কিছুটা মিল আছে বলে আল্লাহতাআলা তার ইবাদাত ও বন্দেগী করার হুকুম দেয়ার পর প্রত্যেক সন্তানকে তার পিতা-মাতার সাথে সুব্যবহারের নির্দেশও দিয়েছেন। যার বহু প্রমাণ আল-কুরআনে এবং হাদীসে আছে।

বিস্তারিত পড়ুন …

শিশুদের সুন্দর জীবন গঠনে পিতা-মাতার ভূমিকা

শিশুদের সুন্দর জীবন গঠনে পিতা-মাতার অবদান অনস্বীকার্য। পিতা-মাতা যেভাবে তাকে গড়ে তোলেন সেভাবেই তারা গড়ে ওঠে। শিশুরা নিষ্পাপ। তারা ফুলের মতো। তারা পিতা-মাতার চক্ষুশীতল করার নিয়ামক। আমাদের প্রিয় নবী (স.) শিশুদের খুব ভালোবাসতেন। তিনি একটি হাদিসে বলেছেন, ‘প্রত্যেক মানব শিশু ইসলামি ফিতরাতের ওপর জন্মগ্রহণ করে।’ এরপর তার পিতা-মাতা, পরিবার তাকে যেদিকে নিয়ে যায়, সে ঐদিকেই চলে যায়। তা ছাড়া প্রত্যেক শিশু পৃথিবীতে আগমন করে সর্বপ্রথম তার মাকে দেখে। তার মা-বাবাকে চিনে। সে জন্য পিতা-মাতাকে সে অনুসরণ করে। পিতা-মাতা কী করে, কী বলে, সে ঐভাবে করতে ও বলতে অভ্যস্ত হয়ে পড়ে। সে কারণে প্রত্যেক পিতা-মাতাকে শিশুদের সামনে সুন্দর আচার-আচরণ উপহার দিতে হবে ও শিশুদের জীবন গঠনে কিছু পদক্ষেপ নিতে হবে। যার মাধ্যমে ঐ শিশু বড় হয়ে কখনো পিতা-মাতার অবাধ্য হবে না এবং উচ্ছৃঙ্খল জীবনযাপনে নিজেদের জড়াবে না।

বিস্তারিত পড়ুন …

পিতা-মাতার সাথে উত্তম আচরণ

পার্থিব জীবনে সন্তানের গর্ভধারণ, শৈশবে লালন-পালন এবং মানুষ হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হওয়ার ক্ষেত্রে পিতা-মাতার অবদান অপরিসীম। তাদের অকৃত্রিম স্নেহ ও ভালোবাসা ব্যতীত পৃথিবীতে কোনো সন্তানের জীবনযাপন করা সম্পূর্ণ অসম্ভব। একজন মা তার স্নেহের পরশ দিয়ে তার সন্তানকে অতি ক্ষুদ্র এক খণ্ড রক্তপিণ্ড থেকে বড় করে তোলেন। বিস্তারিত পড়ুন …